ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
বাংলাঃ ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আরবীঃ ১২ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি
  1. Lead 1
  2. Lead 2
  3. অপরাধ
  4. অর্থনীতি
  5. আইন-আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আরো
  8. ইসলামিক
  9. কবিতা
  10. কৃষি সংবাদ
  11. খুলনা
  12. খেলাধুলা
  13. চট্টগ্রাম
  14. ছড়া
  15. জাতীয়

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের পরিচালক মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে দুনীর্তি ও অনিয়মের অভিযোগ

কলমের কণ্ঠস্বর ডেস্ক
প্রকাশিত: ৫:৪৭ পি.এম, ১৬ অক্টোবর ২০২৩
Link Copied!

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের পরিচালক মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম চৌধুরীর প্রধান কাজ হচ্ছে অপারেশনে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়া ও সাধারণ জনগণের ও সারা দেশবাসির নিরাপত্তা নিশ্চিত করা । কিন্তু তিনি ব্যস্ত থাকেন সেফটি প্ল্যান ও বহুতল ভবনের ছাড়পত্র নিয়ে কারণ ওখানে প্রতিদিন লক্ষ্য লক্ষ্য টাকা আয় হয় অবৈধ উপায়ে এ কাজে সার্বিক সহযোগিতা করেন উক্ত শাখার ওয়্যার হাউজ ইন্সপেক্টর দিদারুল। তিনি প্রত্যেকটি ফায়ার রিপোর্টে ৫% কমিশন নিয়ে থাকেন লেঃ কর্নেল তাজুল ইসলাম, কমিশন না দিলে তার নানান ধরনের অজুহাতে ঘুরতে ঘুরতে জীবন শেষ। এ বিষয় একাধিক ভুক্তভুগী আমাদের কাছে অভিযোগ জানায়। বহুতল ভবনের ছাড়পত্র ও সেফটি প্ল্যান পেতে হলে ২০ ফুট রাস্তা লাগে ও ০২ টি সিড়ি থাকতে হবে । টাকা হলে কিছুই লাগে না । টাকা না দিলে কারেকশন অথ্যাৎ হয়রানি।এছাড়া ও সরকারী বিধি মোতাবেক গাড়ী পান সরকারী কাজের জন্য ০১ টি তিনি জোড় পূর্বক ০২টি গাড়ী ব্যবহার করেন এর মধ্যে ০১ টি গাড়ী তার স্ত্রী সারাক্ষণ নিজের কাজে ব্যবহার করেন।সরকারী বাবুর্চি/সুইপার তিনি বিধি মোতাবেক পান না। অন্যায়ভাবে ০২ জন লোক তার ব্যক্তিগত বাসায় সারাক্ষণ নিয়োজিত রাখেন। অগ্নিকান্ডের সময় লেঃ কর্নেল তাজুল ইসলাম ঞঞখ গাড়ীর ড্রাইভিং সিটে বসে থাকেন যা হাস্যকার।অগ্নি নির্বাপন শেষে সাংবাদিকদের সামনে এসে বড় গলায় কথা বলে কাজ শেষ করেন অপরিপক্ক এই অফিসার।বড় বড় ইঞ্জিনিয়ারদের নকশা তিনি ভুল ধরেন অফিসে ডেকে এনে দাড় করিয়ে রাখেন অথচ তিনি এইচ.এস.সি পাশ একজন কর্মকর্তা এ বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একধিক ভুক্তভুগী আমাদের কাছে অভিযোগ জানায়।আপারেশনাল কর্মকর্তা/কর্মচারীদের সেফটি ব্যবস্থা নিশ্চিত করা তার কাজ, তিনি ব্যস্ত থাকেন বহুতল ভবন, সেফটি প্ল্যান, ফায়ার রিপোর্টার নিয়ে অপরিপক্ক এই অফিসার যারা বাংলাদেশের প্রত্যেকটি স্টেশনের অপারেশনাল কর্মকান্ডের দিকে না তাকানোর কারণে ডেলিভারী হোজ, ফায়ার স্যুট, গামবুট, হেলমেট, ব্রাঞ্জ পাইপ সংকটে ভোগছে পুরো ফায়ার সার্ভিস এ বিষয়ে আরো বিস্তারি আসছে।