ঢাকা শনিবার, ২০শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
বাংলাঃ ৫ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আরবীঃ ১৪ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি
  1. Lead 1
  2. Lead 2
  3. অপরাধ
  4. অর্থনীতি
  5. আইন-আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আরো
  8. ইসলামিক
  9. কবিতা
  10. কৃষি সংবাদ
  11. খুলনা
  12. খেলাধুলা
  13. চট্টগ্রাম
  14. ছড়া
  15. জাতীয়

নীলফামারী কিশোরগঞ্জে শিক্ষা কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ কতৃক সাংবাদিক লাঞ্ছিত!

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ-
প্রকাশিত: ১১:৪৭ পি.এম, ২৫ জুন ২০২৪
Link Copied!

নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ এর কাছে সংবাদ কর্মী, তথ্য চাওয়ায়, সেই সংবাদ কর্মী কে লাথি মেরে কক্ষ থেকে বের করে দেওয়া ও তিন তলা থেকে ফেলে দিয়ে হত্যার হুমকি দেন বলে অভিযোগ উঠেছে এই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে।

এমন কান্ডের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

এতে সমালোচনার ঝড় বইছে জেলা জুড়ে।
সোমবার (২৪ জুন) এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী সাংবাদিক।

এরআগে গত (২৩ জুন) রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এটি ছড়িয়ে পড়ে।

ভুক্তভোগী সাংবাদিক মনির হাসান জীবন দৈনিক আজকের আলোকিত সকাল নামে একটি পত্রিকায় ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত আছেন।

ছড়িয়ে পড়া ভিডিও ও থানায় লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায় , গত (২৩ জুন) দুপুরে উপজেলা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী উপস্থিতি নিয়ে ওই শিক্ষা কর্মকর্তার সাথে কথা বলছেন।

এসময় ওই কর্মকর্তা সাংবাদিকের বাড়ি কোথায় ও শিক্ষাগত যোগ্যতা জানতে চেয়ে চেয়ার থেকে উঠে এসে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে লাথি মেরে কক্ষ থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। আরও দেখা যায়, শিক্ষা কর্মকর্তা বলছেন বাড়ি কোথায় তোর? তুই শিক্ষার কি বুঝিস রে বের হও।
একেবারে তোক দুনিয়া থেকে তুলে দেইম বদমাইশ।
চওরে একেবারে দুনিয়া থাকি তুলি দেইম। তোকে লাথি মেরে তিন তলা থেকে ফেলে দিব। আর কখনো যাতে তোকে এখানে না দেখি।
ভুক্তভোগী সাংবাদিক জীবন বলেন, আমি ঈদের আগে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ঘুরেছি।

ঈদের বন্ধের কারনে শিক্ষা কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করতে পারিনি।
ঈদের বন্ধ খোলার পর আমি বক্তব্য ও তথ্যের জন্য কক্ষে গেলে তিনি আমাকে লাথি মেরে বের করে দেয় ও অশ্লীল গালিগালাজ তিন তলা থেকে ফেলে হত্যা করার হুমকি দেয়।

এবিষয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নূর মোহাম্মদের মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তিনি কল রিসিভ করেননি।

কিশোরগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পলাশ চন্দ্র মন্ডল অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।